প্রথমবারের মতো এমপি হয়ে মন্ত্রী হলেন যারা

ঢাকা: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রথমবারের মতো নৌকা প্রতীক নিয়ে সংসদ সদস্য পদে জয়লাভ করে মন্ত্রিসভায় স্থান পেয়েছেন আটজন। তারা হলেন-এ কে আব্দুল মোমেন (সিলেট-১), শ ম রেজাউল করিম (পিরোজপুর-১), মো. জাকির হোসেন (কুড়িগ্রাম-৪), জাহিদ ফারুক (বরিশাল-৫), মো. মুরাদ হাসান (জামালপুর-৪), কে এম খালিদ (ময়মনসিংহ-৫), এ কে এম এনামুল হক শামীম (শরীয়তপুর-২) ও মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল (চট্টগ্রাম-৯)।

রোববার বিকাল সাড়ে ৪টায় নতুন মন্ত্রিসভার সদস্যদের নাম ঘোষণা করেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম। সিলেট-১ আসন থেকে প্রথমবার জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিয়ে এ কে আব্দুল মোমেন জয়লাভ করেন। মন্ত্রিসভায় তাকে পররাষ্ট্র মন্ত্রীর দায়িত্ব দিয়েছেন শেখ হাসিনা।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের ছোট ভাই মোমেন এরআগে দীর্ঘদিন ওয়াশিংটনে জাতিসংঘের বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। পিরোজপুর-১ থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক শ ম রেজাউল করিমও প্রথমবার নির্বাচিত হয়ে মন্ত্রিসভায় স্থান পেয়েছেন। তাকে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

কুড়িগ্রাম-৪ থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মো. জাকির হোসেনকে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। বরিশাল-৫ থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য জাহিদ ফারুককে প্রথমবারই মন্ত্রিসভায় ঠাঁই দিয়ে পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। জামালপুর-৪ থেকে নির্বাচিত মো. মুরাদ হাসানকে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

ময়মনসিংহ-৫ থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য কে এম খালিদকে দেয়া হয়েছে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব। শরীয়তপুর-২ থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীমকে পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

এছাড়া চট্টগ্রামের প্রয়াত মেয়র মহিউদ্দিন চৌধুরীর ছেলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলকে শিক্ষা উপমন্ত্রী করা হয়েছে। তিনি চট্টগ্রাম-৯ থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য।

শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ৪৭ সদস্যের মন্ত্রিসভায় ২৪ জন মন্ত্রী, ১৯ জন প্রতিমন্ত্রী ও তিনজন উপমন্ত্রী সরকার পরিচালনা করবেন। এদের মধ্যে অপেক্ষাকৃত নবীনরাই স্থান পেয়েছেন এবারের মন্ত্রিসভায়।

আগামীকাল সোমবার বিকাল সাড়ে ৩টায় রাষ্ট্রপতি বঙ্গভবনে প্রথমে প্রধানমন্ত্রীর শপথ পড়াবেন। এরপর মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীদের শপথ পড়াবেন রাষ্ট্রপতি। শপথের পর মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে দফতর বণ্টন করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *